চট্টগ্রামের পাঠকপ্রিয় অনলাইন

কর্ণফুলী

চট্টগ্রাম নগরীর শাহ্ আমানত ব্রীজ এলাকায় ইয়াবাসহ বিজিবি সদস্য গ্রেফতার

সিটিজি বাংলা, নগর প্রতিবেদক:

প্রতিকী ছবি

চট্টগ্রাম নগরীর শাহ আমানত ব্রীজ এলাকায় ইয়াবাসহ গ্রেফতার হয়েছে কক্সবাজার জেলার বিজিবির এক সদস্য।

১২ সেপ্টেম্বর বুধবার ভোরে চট্টগ্রাম নগরীর বাকলিয়া থানাধীন শাহ আমানত ব্রীজের গোলচত্বর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ।

 

ওই বিজিবি সদস্যের নাম নজরুল ইসলাম (৪৩)। গ্রেফতারকৃত নজরুল কক্সবাজারের টেকনাফে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ ব্যাটেলিয়ন-২ এ কর্মরত রয়েছেন।

 

গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করে চট্টগ্রাম নগর পুলিশের উপ-কমিশনার (দক্ষিণ) এস এম মোস্তাইন হোসেন বলেন, গোপন তথ্যের ভিত্তিতে ইয়াবাসহ বিজিবি সদস্য নজরুলকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সে কক্সবাজার থেকে ফরিদপুরের উদ্দ্যেশে ইয়াবাগুলো নিয়ে যাচ্ছিল।

আমানত সেতু এলাকায় বিশেষ চেকপোষ্ট বসিয়ে ইয়াবাসহ তাকে গ্রেফতার করেছে বাকলিয়া থানা পুলিশ বলেও জানান তিনি। তবে কতটুকু ইয়াবাসহ গ্রেপ্তার হলেন এ বিষয়ে বিস্তারিত পরে জানাবেন বলেছেন তিনি।

 

তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে এমনটি জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

কর্ণফুলী নদীতে গোসল করতে গিয়ে শ্রমিক নিহত

সিটিজি বাংলা, কর্ণফুলী প্রতিনিধি:

প্রতিকী ছবি

চট্টগ্রাম নগরীর কর্ণফুলী নদীতে গোসল করতে নেমে নিখোঁজের এক দিন পর রাজীব (২২) নামে এক ঘাট শ্রমিকের মরদেহ উদ্ধার হয়েছে।

১২ সেপ্টেম্বর বুধবার নগরীর সদরঘাট থানাধীন কর্ণফুলী ঘাট থেকে স্থানীয়রা তার মরদেহটি উদ্ধার করে থানায় খবর দেয়। নিহত রাজীবের বাড়ি বরিশালের ভোলায় এবং বেশ ক’দিন আগে সে কাজের উদ্দেশ্যে চট্টগ্রাম নগরীতে আসে বলে জানা গেছে।

 

সদরঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নেজাম উদ্দিন জানান, মঙ্গলবার দুপুরে নদীতে গোসল করতে নেমে রাজীব নিখোঁজ হয়েছিল। সেদিন খোঁজাখুঁজি করে তাকে পাওয়া না গেলেও বুধবার দুপুরে তার মরদেহ নদীতে ভেসে উঠলে স্থানীয়রা উদ্ধার করে পুলিশ কাছে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছে।

কর্ণফুলীর চরপাথরঘাটায় গৃহবধুর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

সিটিজি বাংলা, কর্ণফুলী প্রতিবেদক:

প্রতীকী ছবি

 

চট্টগ্রাম কর্ণফুলী উপজেলার চরপাথরঘাটা ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডে এক গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

৯ সেপ্টেম্বর রোববার রাত ৮টার দিকে মরিয়ম জান্নাত (২২) নামে ওই গৃহবধূর লাশ উদ্ধারের ঘটনাটি ঘটে।

 

তিনি মাদ্রাসার শিক্ষক গিয়াসউদ্দিনের স্ত্রী ও কুতুবদিয়া উপজেলার কৈয়ারচর এলাকার স্থায়ী বাসিন্দা। নিহত মরিয়ম জান্নাত কর্ণফুলী উপজেলার চরপাথরঘাটা ১নং ওয়ার্ডের শাহ ছমিয় নগর জাগির সওদাগরের বিল্ডিংয়ের চার তলায় স্বামীকে নিয়ে ভাড়ায় থাকতেন।

 

বিষয়টি নিশ্চিত করে সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য সাইফুদ্দীন মানিক জানান, চারতলা একটি বাড়ির নিজের ঘরের রুমে থাকা সিলিং ফ্যানের সঙ্গে গলায় কাপড় পেঁচিয়ে ফাঁসিতে আত্মহত্যা করে সে। পরে ঝুলন্ত অবস্থায় মৃতের লাশ উদ্ধার করে স্থানীয় দুই মহিলা পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিকেলে মর্গে পাঠানো হয়েছে।

 

কর্ণফুলী থানার ওসি তদন্ত মোঃ ইমাম হাসান জানান, চারতলা ভবনের একটি কক্ষে স্বামী নিয়ে থাকতেন মরিয়ম। রাতে পাশের বাসিন্দারা দরজা খুলে ফ্যানের সঙ্গে তার ঝুলন্ত লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেন। পরে খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে লাশ টি উদ্ধার করে। মরিয়ম আত্মহত্যা করেছে নাকি তাকে হত্যা করা হয়েছে তা তদন্ত করা হচ্ছে। এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট থানায় কোন মামলা দায়ের করা হয়নি বলেও জানান তিনি।

চট্টগ্রামে কর্ণফুলী নদীর তলদেশে টানেল নির্মাণ কাজ ২৪ শতাংশ সম্পন্ন: ওবায়দুল কাদের

সিটিজি বাংলা, রুমেন চৌধুরী:

 

কর্ণফুলী নদীর তলদেশে টানেল প্রদর্শন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের

চট্টগ্রামে কর্ণফুলী নদীর তলদেশে টানেল নির্মাণকাজের ২৪ শতাংশ সম্পন্ন হয়েছে এবং অক্টোবরে নদীর তলদেশে বোরিং কাজ শুরু হবে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

 

২৪ আগষ্ট শনিবার সকালে কর্ণফুলী নদীর তলদেশে টানেল নির্মাণকাজ পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এ মন্তব্য করেন।

 

সেতু ও যোগাযোগ মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, এরই মধ্যে বোরিং মেশিন এসে পৌঁছেছে। বর্তমানে মেশিনটি সংযোজনের কাজ চলছে। কর্ণফুলীতে টানেল আর কোন স্বপ্ন নয়, শিগগিরই এটি বাস্তব রূপ লাভ করবে।

তিনি আরো বলেন, চার লেইনের তিন দশমিক চার কিলোমিটার দৈর্ঘ্য এ টানেল হবে দুই টিউব সম্বলিত। পূর্ব পশ্চিম প্রান্তে হবে পাঁচ দশমিক ৩৫ কিলোমিটার সংযোগ সড়ক।

টানেলের মোট ব্যয় ধরা হয়েছে এক হাজার ৫৫ দশমিক ৮৩ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। বাংলাদেশি টাকায় তা আট হাজার ৪৪৬ দশমিক ৬৪ কোটি টাকা।

এ সময় আগামী নির্বাচনে বঙ্গবন্ধুর কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আওয়ামী লীগের উন্নয়ন প্রকল্প অব্যাহত রাখতে পুনরায় নৌকায় ভোট দিয়ে জনগণের সরকার আওয়ামী লীগকে জয়যুক্ত করার আহ্বান জানান তিনি।

 

এছাড়াও সাংবাদিকের এক প্রশ্নের জবাবে একুশে আগস্টের গ্রেনেড হামলার দায় বিএনপি কোনোভাবেই এড়াতে পারে না বলে জানিয়ে সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, একুশে আগস্ট গ্রেনেড হামলা বিএনপির ক্ষমতায় থাকাকালীন সময় ঘটেছে। এর পেছনে তাদেরই ইন্ধন ছিল। হত্যাকারী যেই হোক, যত প্রভাবশালী হোক, ক্ষমা পাবে না। নির্বাচনের আগেই অর্থাৎ আগামী সেপ্টেম্বরের মধ্যে এ মামলার রায় হবে। আর তখন জনগণেই বুঝতে পারবে ওই নেক্কার জনক ঘটনায় জড়িত কারা ছিল।

 

এ সময় মন্ত্রীর সঙ্গে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোছলেম উদ্দিন আহমদ, সাতকানিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম.এ মোতালেব, রাউজান উপজেলা চেয়ারম্যান এহছানুল হায়দার চৌধুরী বাবুলসহ আরো দলের গন্যমান্য রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গরা উপস্থিত ছিলেন।

বঙ্গবন্ধুর শোক দিবস পালন উপলক্ষে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর উপস্থিতিতে দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভা অনুষ্ঠিত

সিটিজি বাংলা, নগর প্রতিবেদক:

 

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর উপস্থিতিতে জিইসি কনভেনশন হলে দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সমাবেশের ছবি

 

চট্টগ্রাম নগরীতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৩ তম শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ উদ্দেগ্যে জিইসি কনভেনশন হলে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

 

১২ আগস্ট রবিবার সকাল সাড়ে ১১টায় এ সভা শুরু হয় এবং চলে বিকেল পর্যন্ত। সভা শুরুর আগে জাতির জনকসহ ১৫ আগষ্টে নিহত সকলের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করেন।

 

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্বরাস্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল। তিনি দুপুর ১২টা ১০ মিনিটে সভাস্থলে পৌছেন।

চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত শোক দিবসের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ১৫আগষ্ট বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতাসহ আমরা অনেকককে হারিয়েছি। তারপর আমাদের অপেক্ষা করতে হয়েছে ২১বছর। আমার দেখেছি যুদ্ধাপরাধীদের গাড়ীতে জাতীয় পতাকা উড়ছে। ১৫আগষ্টের পর বিদেশীরা আমাদের প্রশ্ন করেছিলো তোমার কেমন জাতি যে তোমরা জাতির পিতাকে হত্যা করো।

 

সভায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরো বলেন, বাংলাদেশের মানুষ বিশ্বাস করে জাতিরজনক বঙ্গবন্ধুর অবর্তমানে তার সুযোগ্য কণ্যা শেখ হাসিনা অবস্থান সৃষ্টি করেছে। তার নেতৃত্বে তার সুযোগ্য নেতৃবৃন্দরা দেশ উন্নয়নে সহযোগীতা করে যাচ্ছে। যার ফসলে দুর্নীতিতে পাঁচবারের চ্যাম্পিয়ান দেশ আজ সফল বাংলাদেশ। খাদ্য ঘাটতির দেশ আজ খাদ্যে স্বয়ং সম্পুর্ণ। সন্ত্রাস জঙ্গিবাদের দেশ আজ শান্তি ও সুশৃঙ্খল এবং নিরাপত্তার বাংলাদেশ।

 

দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মোসলেম উদ্দিনের সভাপতিত্বে সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমানের সঞ্চালনায় সভার প্রধান অতিথি ছিলেন বিশেষ অতিথি হিসেবে ভুমি প্রতিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ।

ভূমি প্রতিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ বলেন, বিগত সকল সংসদ নির্বাচনের চাইতেও আগামী সংসদ নির্বাচন বেশি গুরুত্বপূর্ণ। সকল নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টায় জনগণের প্রত্যক্ষ ভোটে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে পুনরায় নির্বাচিত করে দেশ উন্নয়নে অব্যাহত রাখার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। পাশাপাশি আগামী সংসদ নির্বাচনে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলার সব কয়টা আসন প্রধানমন্ত্রীকে উপহার দেওয়ার কথা উল্লেখ করেন ভুমিমন্ত্রী।

এ সময় তিনি আরো বলেন,৭৫ এর ঘাতকরা দেশকে অস্থিতিশীল করার ষড়যন্ত্রের জন্যই জন্মগ্রহণ করেছে। এখনো তারা ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছে। নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের শুসৃঙ্খল আন্দোলনেও তারা কৌশলে প্রবেশ করে সারাদেশে নৈরাজ্য সৃষ্টির যে পায়তারা করেছে তাই প্রমাণ করে তারা এখনো ষড়যন্ত্রে লিপ্ত।

 

এছাড়াও চট্টগ্রাম সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিন, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এম এ সালাম, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের উপ প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন ও উপ দপ্তর সম্পাদক ব্যারিষ্টার বিপ্লব বড়ুয়াসহ অনেকেই উপস্থিত ছিলেন।

 

উক্ত অনুষ্ঠানে চট্টগ্রাম নগর, দক্ষিন ও উত্তর জেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ,ছাত্রলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগসহ অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দদের যথেষ্ঠ উপস্থিতি লক্ষ্য করা গেছে।

চট্টগ্রাম নগরীর নতুন ব্রীজ এলাকায় ৫টি ছোড়াসহ ৭ ছিনতাইকারীর সদস্য গ্রেফতার

সিটিজি বাংলা, নগর প্রতিবেদক:

গ্রেপ্তারকৃত ৭ জন ছিনতাইকারী

 

চট্টগ্রাম নগরীর বাকলিয়া থানা এলাকায় অভিযান চালিয়ে অস্ত্রশস্ত্রসহ ১১ জনকে আটক করেছে পুলিশ।

১০ আগস্ট শুক্রবার ভোরে অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক করা হয়েছে বলে জানায় পুলিশ।

এ অভিযানে বাকলিয়া থানার নতুন ব্রিজ এলাকায় ৫টি ছোরাসহ ছিনতাই চক্রের ৭ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

 

গ্রেফতার হওয়া ছিনতাই চক্রের সদস্যরা হলেন- আব্দুর রহমান (২০), জাবেদ হোসেন (২০), মো. আলাউদ্দিন (১৯), মো. সোহেল (১৮), আব্দুল মতিন (২০), মো. মোরশেদ (২২) ও মো. সমশুল মুন্না (২২)।

 

বাকলিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রণব চৌধুরী জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ছিনতাইয়ের প্রস্তুতিকালে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এদের সকলেই উঠতি বয়সের কিশোর। তাদের বিরুদ্ধে ছিনতাইয়ের প্রস্তুতি নেওয়ার অপরাধে বাকলিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

শাহ্ আমানত ব্রীজের টোলপ্লাজায় ভাংচুর ও মারধরের অভিযোগে এএসপি মশিয়ার ক্লোজ

সিটিজি বাংলা:

মদ্যপান অবস্থায় চট্টগ্রাম নগরীর কর্ণফুলীর শাহ আমানত ব্রীজের টোল প্লাজায় ভাঙচুর ও কর্মচারী এবং ইলেকট্রিক ইঞ্জিনিয়ারকে মারধর করার অভিযোগ উঠেছে চট্টগ্রাম জেলার মীরসরাই সার্কেলের এএসপি মশিয়ার রহমান খোকনের বিরুদ্ধে।

 

৩ জুলাই শুক্রবার দুপুর বেলা পৌনে ১২টার দিকে এ ঘটনা ঘটেছে । এ ঘটনায় ওই অফিসারকে তাৎক্ষনিকভাবে ক্লোজ করা হয়েছে এবং পুলিশ লাইন্সে সংযুক্ত করা হয়েছে।

 

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জেলা পুলিশের এডিশনাল এসপি (সদর) রেজাউল মাসুদ। তিনি জানান, এএসপি মশিয়ার রহমান খোকনকে ক্লোজ করা হয়েছে। এর আগে মশিয়ারকে রাজশাহীতে বদলী করা হয়েছিল। কিন্তু তিনি সেখানে যুক্ত না হয়ে চট্টগ্রামে রয়েছেন।
এদিকে খবর নিয়ে জানা গেছে, এএসপি মশিয়ারকে কিছুদিন আগে রাজশাহীতে বদলী করা হয়েছিল। কিন্তু তিনি কর্মস্থলে যোগ না দিয়ে চট্টগ্রামেই অবস্থান করতে থাকেন। এবং সরকারী গাড়ি ব্যবহার করে ব্যাক্তিগত কাজে যত্রতত্র ঘুরে বেড়াতেন।

 

বীজের টোল প্লাজার ইনচার্জ অপূর্ব সাহা জানান, অভিযোগে জানা গেছে, এএসপি মশিয়ার শুক্রবার দুপুরে চট্টগ্রাম থেকে তার নিজের ব্যবহার করা অফিসের গাড়ি নিয়ে বান্দরবান যাচ্ছিল। তিনি শাহ্ আমানত ব্রীজ (কর্ণফুলি সেতু) পার হয়ে টোল প্লাজার সামনে গেলে সেখানে আগে থেকে টোল পরিশোধ করার কারণে ৪/৫টি গাড়ীর জ্যাম লেগে যায়। সেই জ্যামে আটকা পড়ে এএসপি মশিয়ারের গাড়ি। এতে তিনি গাড়ি থেকে নেমে লাঠি হাতে টোলপ্লাজায় গিয়ে লাথি মেরে দরজা খুলে এবং লাঠি দিয়ে কাঁচের গ্লাস ভেঙ্গে টোল অফিসে প্রবেশ করে কর্মচারী কর্মকর্তাদের গালাগাল ও তাদের মারধর করে। অথচ মাত্র ৩/৪টি গাড়ি তখন টোল পরিশোধ করার জন্য লাইনে ছিল।

অপূর্ব আরো বলেন, এএসপি স্যার তখন মাতাল বস্থায় ছিলেন। তিনি লাঠি দিয়ে অফিসের সমস্ত কাঁচ ভাংচুর করেন। বাধা দেয়ার চেষ্টা করলে গার্ডকে প্রহার করতে থাকেন এবং ইলেকট্রিক ইঞ্জিনিয়ার সাদ্দাম হোসেনকে থাপ্পর মারেন। এতে তার কান ফেটে গেছে।

তিনি বলেন, টোল প্লাজায় হামলা চালিয়ে কাঁচ ভাংতে গিয়ে মশিয়ারের হাত কেটে যায়। এতে তিনি কিছুটা আহত হন। এ অবস্থায় তিনি বান্দরবান যাওয়ার সময় উদ্বর্তন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে চন্দনাইশ থানা পুলিশ তাকে আটকে দেন। পরে সেখান থেকে চট্টগ্রাম জেলা পুলিশ লাইনে পাঠিয়ে দেন।

এ ব্যাপারে জেলা পুলিশ সুপার নূরে আলম মিনা বলেন, মশিয়ার রহমান মিরসরাই থেকে কেন কর্ণফুলী আসছেন বিষয়টি জানি না। তিনি আমাদের জানাননি। তার ব্যাপারে পুলিশ সদর দফতরে জানানো হয়েছে। সদর দফতর ব্যবস্থা নেবে। তবে অভিযোগ পাওয়ার পরপরই তাৎক্ষনিকভাবে তাকে অব্যাহতি দিয়ে পু্লিশ লাইন্সে সংযুক্ত করা হয়েছে। অভিযোগ রয়েছে মীরসরাইয়ে আসার আগে এএসপি মশিয়ার ঢাকায় এক ট্রাফিক সার্জেন্টকে মাতালবস্থায় মারধর করার অভিযোগে বেশ কিছুদিন সান্সপেন্ড ছিলেন।

.

জাহাজ থেকে গ্যাস সিলিন্ডার নামাতে গিয়ে কর্ণফুলী নদীতে মাঝি নিখোঁজ

সিটিজি বাংলা:

 

 

চট্টগ্রাম নগরীর পাশে প্রবাহিত কর্ণফুলী নদীতে একটি জাহাজের গ্যাসের সিলিন্ডার নামানোর সময় নিচে পড়ে গিয়ে এক সাম্পান মাঝি নিখোঁজ হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

 

২২ জুলাই রোববার দুপুরের দিকে হাজী দৌলত আইস ফ্যাক্টরির জেটিতে শাহ বদর-১ জাহাজ থেকে নদীতে পড়ে গিয়ে মোহাম্মদ আলী (৩৯) নামের ওই মাঝি নিখোঁজ হন।

নিখোঁজ মোহাম্মদ আলী চরপাথরঘাট এলাকার জরিপ আলীর ছেলে।

 

কর্ণফুলী ব্রীজঘাট সাম্পান মাঝি কল্যাণ সমিতির সভাপতি জাফর আহমদ জানান, জাহাজটি থেকে গ্যাসের সিলিন্ডার নামানোর সময় নিচে পড়ে মোহাম্মদ আলী নিখোঁজ রয়েছেন। পরে অনেক খোঁজাখুঁজির পরও না পেয়ে কর্ণফুলী থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করা হয়েছে।

 

কর্ণফুলী থানার সেকেন্ড অফিসার মো. হোসাইন জানান, কর্ণফুলী নদীতে পড়ে এক সাম্পান মাঝি নিখোঁজের ঘটনায় সাধারণ ডায়েরি করা হয়েছে। আমরা উদ্ধারে কাজ করতে কোষ্টগার্ড ও ফায়ার সার্ভিসের সদস্যদের সহযোগিতা করছি।

কর্ণফুলী এলাকায় ৪০ বছরের গৃহবধু ধর্ষনের ঘটনায় গ্রেফতার তিন

সিটিজি বাংলা,

 

চট্টগ্রাম নগরীর কর্ণফুলী উপজেলায় চরলক্ষ্যা ইউনিয়নের গোয়ালপাড়ায় স্বামীর সঙ্গে রাগ করে ঘর থেকে বেরিয়ে ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক গৃহবধু।

 

২১ জুলাই শনিবার ভোররাতে ৪০ বছর বয়সী গৃহবধু ধষর্ণের শিকার হয়েছেন বলে জানিয়েছে কর্ণফুলী থানার এডিসি জাহিদুল ইসলাম।

 

পরে একই দিনে ওই ঘটনায় কর্ণফুলী থানায় মামলা করলে পুলিশ শনিবার দুপুরে ধর্ষণে জড়িত থাকায় তিন যুবককে গ্রেফতার করে।

 

ধর্ষনের অভিযোগে গ্রেফতারকৃতরা হলেন-মো. ইমরান (৩০), মো. শাহজাহান (৩২) এবং কাউসার হালিম মুন্না (১৮)।

 

বিষয়টি নিশ্চিত করে চট্টগ্রাম মেট্রেপলিটন পুলিশের (সিএমপি) অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার আরেফিন জুয়েল জানান, শনিবার ভোররাতে চরলক্ষ্যা ইউনিয়নের গোয়ালপাড়ায় স্বামীর সঙ্গে রাগ করে ঘর থেকে বেরিয়ে রাস্তা দিয়ে হেঁটে যাওয়ার সময় ধর্ষণের শিকার হয়েছেন ওই গৃহবধু। এ ঘটনায় জড়িত থাকায় তিন যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে।

 

তিনি বলেন, ধর্ষণের সঙ্গে জড়িত নুরুল আমীন (২৭) নামের আরও একজন আসামি এখনো পলাতক রয়েছে। তাকে গ্রেফতারে অভিযান চলমান রয়েছে।

 

তিনি আরো জানান, ধর্ষণ ঘটনার শিকার গৃহবধূকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছে।

বাসের হেলপারের আড়ালে ইয়াবা ব্যবসা, র‍্যাবের হাতে ৪১ হাজার ৩৯০পিসসহ ধরা

সিটিজি বাংলা,

 

 

চট্টগ্রাম নগরীর বাকলিয়া থানাধীন নতুন ব্রিজ এলাকা থেকে লন্ডন পরিবহনের এক সুপার ভাইজারকে ৪১ হাজার ৩৯০ পিছ ইয়াবাসহ আটক করেছে র‌্যাব-৭।

 

২১ জুলাই শনিবার ভোর রাতে আড়াইটার সময় ওই বাসের সুপার ভাইজার মোঃ হামিদুল ইসলাম কাজল (২১)কে গ্রেফতার করা হয়।

 

এ সময় তার কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে একচল্লিশ হাজার তিনশত নব্বই পিস ইয়াবা। এসব ইয়াবার আনুমানিক মূল্য ২ কোটি ০৬ লক্ষ ৯৫ হাজার টাকা বলে জানায় র‌্যাব-৭ এর সিনিয়র সহকারি পরিচালক মিমতানুর রহমান।

 

তিনি জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এই অভিযান চালানো হয়। বাকলিয়া থানাধীন নতুন ব্রীজ সংলগ্ন পুলিশ বক্সের দক্ষিন পার্শ্বে কক্সবাজার-চট্টগ্রাম মহাসড়কের উপর একটি বিশেষ চেকপোস্ট স্থাপন করে গাড়ি তল্লাশী করতে থাকে। এ সময় কক্সবাজার হতে চট্টগ্রামগামী লন্ডন এক্সপ্রেস নামীয় ১টি যাত্রীবাহী বাস থামানোর জন্য সংকেত দিলে বাসের চালক বাসটি চেকপোস্টস্থ রাস্তার পার্শ্বে থামায়।

এসময় র‌্যাব সদস্যারা বাসটি তল্লাশী শুরু করলে একজন ব্যাক্তি সুকৌশলে বাস হতে নেমে পালানোর চেষ্টা করলে র‌্যাব সদস্যরা ধাওয়া করে কাজলকে ধরে ফেলে। আটক আসামী বাসটির সুপার ভাইজার বলে জানা যায়।

 

মূলত বাসের সুপার ভাইজার এর আড়ালে ইয়াবা পাচার করতো কাজল। আটককৃত আসামীকে বাকরিয়া থানায় হস্তান্তর করে মাদক আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।